নাস্তিকদের ক্ষেত্রে অজ্ঞতার বিধান বা ধর্মদ্রোহী নাস্তিকদের ক্ষেত্রে অজ্ঞতা কোনভাবেই ওযর হিসেবে গণ্য নয়।

নাস্তিকদের ক্ষেত্রে অজ্ঞতার বিধান বা ধর্মদ্রোহী নাস্তিকদের ক্ষেত্রে অজ্ঞতা কোনভাবেই ওযর হিসেবে গণ্য নয় – শায়েখ আব্দুল্লাহ আল মুনির

বর্তমানে এমন কিছু মুসলিম নামধারী কবি-সাহিত্যিক রয়েছে যারা আল্লাহ-রাসুল ও দ্বীন ইসলামের বিভিন্ন ব্যাপারে সন্দেহ পোষণ করে এবং নাস্তিকতার প্রচার করে। বিপরীত দিকে এমন কিছু নির্বোধ ইসলামী চিন্তাবিদ রয়েছে যারা অজ্ঞতা ও অবিজ্ঞতার অজুহাতে এই সকল ধর্মদ্রোহী নাস্তিকদের কাফির হওয়া থেকে অব্যাহতি দেওয়ার পক্ষে ওকালোতী করেন। তারা বলেন, ঐ সকল লোকেরা না-বুঝে না জেনে এমন করছে তাদের কাফির বলার পূর্বে তাদের সাথে দীর্ঘ সময় আলাপ-আলোচনা করার প্রয়োজনীয়তা রয়েছে। তাদের ইসলাম সম্পর্কে সুবিস্তারে অবহিত করতে হবে, তাদের সন্দেহ-সংশয় দূর করতে হবে ইত্যাদি। এই সকল চিন্তাবিদদের এই প্রচেষ্টা সম্পূর্ণ অজ্ঞতাপ্রসূত। যেহেতু তাওহীদ ও রেসালাত অস্বীকার করলে একজন ব্যক্তিকে কাফির বলা হবে যদিও তার নিকট ইসলামের দা’ওয়াত একেবারেই না পৌঁছে অর্থাৎ সে ইসলাম সম্পর্কে পূরোপূরি অজ্ঞ থাকে। তবে এমন ব্যক্তির নিকট দা’ওয়াত একেবারেই না পৌঁছানোর আগে তাকে হত্যা করা নিষেধ হবে। কিন্তু এ নিষেধাজ্ঞা ইসলামের দা’ওয়াত উক্ত ব্যক্তির কর্ণগোচর হওয়ার সাথে সাথে শেষ হয়ে যাবে। এ বিষয়ে তার সাথে দীর্ঘ সময় আলাপ-আলোচনা করা বা যুক্তি-প্রমাণ উপস্থাপণের আবশ্যকতা নেই। সুতরাং বর্তমানে যারা আল্লাহর অস্তিত্ব, তার একত্ব, মুহাম্মাদ সাঃ এর রেসালাত, আল্লাহর পক্ষ হতে অবতীর্ণ দ্বীন ইসলামের আনুগত্য ইত্যাদি ব্যাপারে সন্দেহ পোষণ করে তাদের কাফির হিসেবে আখ্যায়িত করা হবে। এ বিষয়ে কোনো অবস্থাতেই অজ্ঞতা বা মুর্খতাকে ওযর হিসেবে গণ্য করা হবে না। অজ্ঞতা ওযর হিসেবে গণ্য হবে কেবল তার ক্ষেত্রে যে তাওহীদ ও রেসালাতের স্বীকৃতি দেওয়ার মাধ্যমে মুসলিম হয়েছে কিন্তু না বোঝার কারণে বা না জানার কারণে ইসলামের অন্যান্য বিধি-বিধানসমূহের কোনো অংশ অস্বীকার করেছে। সেক্ষেত্রেও লক্ষ্য করা হবে উক্ত ব্যক্তি যে বিধান অস্বীকার করছে সে সম্পর্কে অজ্ঞ থাকার দাবী গ্রহণযোগ্য কিনা। যদি উক্ত বিধানটির যথেষ্ট প্রচার-প্রসার থাকে এবং উক্ত ব্যক্তি মুসলিমদের সাথে বেশ কিছু সময় মেলা-মেশা করার সুযোগ পায় তবে উক্ত ব্যাপারে তাকে অজ্ঞ হিসেবে ওযর দেওয়া যাবে না। পরবর্তী পোষ্টে আমরা এ সম্পর্কে পৃথকভাবে বিস্তারিত আলোচনা করবে। ইনশাআল্লাহ্ ।

মোটকথা, এ সকল নাস্তিকরা এ বিষয়ে মোটেও অজ্ঞ নয় যেহেতু ইসলামের দা’ওয়াত তাদের নিকট পৌছে গেছে। সুতরাং তাদের তাকফীর করা বা হত্যা করা ইত্যাদি কোনো ব্যাপারেই কোনো বাধা-বিঘ্ন অবশিষ্ট নেই।

নাস্তিকদের ক্ষেত্রে অজ্ঞতার বিধান নাস্তিকদের ক্ষেত্রে অজ্ঞতার বিধান

Leave a Reply

Your email address will not be published.